চারঘাট উপজেলা এখনো করোনা মুক্ত, কোয়ারেন্টিনে ২৬, আইসোলেশনে ৩ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক

নিউজরাজশাহী.কম

প্রকাশিত : ১১:২৮ এএম, ১৭ মে ২০২০ রবিবার | আপডেট: ১১:৫২ এএম, ১৭ মে ২০২০ রবিবার

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার সর্বমোট ৪৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। পরীক্ষা করা নমুনায় কোনটাতেই করোনা ভাইরাসের জীবানু মেলেনি বলে নিশ্চিত করেছেন চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কতৃপক্ষ। রাজশাহী জেলায় এ পর্যন্ত করোনা শনাক্ত হয়েছে ২০ জনের।

জেলায় গোদাগাড়ী এবং চারঘাট উপজেলা ব্যাতিত সব উপজেলাতেই করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। পার্শ্ববর্তী সব উপজেলায় করোনাভাইরাস শনাক্তের পর থেকেই চারঘাট উপজেলা ঝুঁকিতে রয়েছে।

এজন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার সৈয়দা সামিরার নেতৃত্বে উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগসহ সবগুলো দফতর সতর্ক অবস্থায় রয়েছেন। গত শুক্রবার রাত ১২টা পর্যন্ত ২৬ জনকে নিজ বাড়িতে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আইসোলেশন ওয়ার্ডে রয়েছেন তিনজন। তাদের মধ্যে দুইজন ঢাকা ফেরত নারী এবং একজন চিটাগাং ফেরত পুরুষ।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আশিকুর রহমান জানান, উপজেলায় সর্বমোট ৪৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে, তাতে কোনটাতেই করোনার জীবানু মেলেনি। কারও করোনা সন্দেহে কোনো উপসর্গ দেখা দিলে তাৎক্ষণিক নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হচ্ছে। উপজেলার সর্বস্তরের মানুষকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার পাশাপাশি অযথা ঘর থেকে বের না হওয়া এবং সবাইকে বেশি বেশি করে হ্যান্ড স্যানিটাইজার, সাবান, হ্যান্ডওয়াশ দিয়ে হাত ধোয়ার আহবান জানান তিনি।

এ বিষয়ে চারঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দা সামিরা বলেন, লকডাউনের পর থেকে আমরা লোকজনকে সচেতন করাসহ বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় মাইকিং, খাবার পৌছে দেয়াসহ সার্বিক ভাবে করোনা প্রতিরোধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। সবার মিলিত প্রচেষ্টায় এখন পর্যন্ত চারঘাট করোনা ভাইরাস মুক্ত উপজেলা। তবে এখনো সংকট কেটে যায়নি। সেজন্য আগামী ঈদসহ পুরোটা সময় চারঘাটবাসীকে সরকারী আইন মেনে চলার আহ্বান জানান তিনি।

স/মা