Advertisement

নাটোরের প্রকৃতিতে শীতের আগমনী বার্তা

নিজস্ব প্রতিবেদক

নিউজরাজশাহী.কম

প্রকাশিত : ০৫:৪০ পিএম, ২৩ অক্টোবর ২০১৯ বুধবার

ষড়ঋতুর দেশে হেমন্ত মানেই শীতের আগমনী বার্তা। শিশির ভেজা ও কুয়াশা জানান দিচ্ছে, শীত আসছে। মহানগরীর দালান কোঠায় শীতের পরশ একটু দেরিতে এলেও, উত্তরের জেলা নাটোরে এরইমধ্যে দেখা মিলছে কুয়াশার। প্রকৃতিতে হেমন্তের হিম হিম হাওয়া। ঘাস ভিজছে শিশিরে।

চারিদিকে সকালে রোদের নরম রঙ শিশুর গালের মত লাল। রুপসী বাংলায় হেমন্তের এই চিরায়ত রুপের কথা বারবার এসেছে হৃদয়ের কবি জীবনানন্দ দাশের কবিতায়।

হেমন্ত মানেই শীতের আগমনী। শিশিরভেজা ঘাস, ভোরে ও সন্ধ্যায় কুয়াশার চাদরে ঢাকা প্রকৃতি। শীতের আগাম সবজিতে খেতে কৃষকের ব্যস্ততা।

গ্রামবাংলার সাধারণ মানুষেরা বলছেন, `হেমন্ত মানে শীত শীত ভাব, ঠান্ডা বাতাস, ঠান্ডা প্রকৃতি। শেষ রাতের দিকে ঠান্ডা লাগে, পরে হয়তো হালকা চাদর মুড়ে দেই।`

নাটোরের গ্রামগুলোয় শুরু হয়েছে খেজুরের গাছ থেকে রস সংগ্রহ। শীত যত বাড়বে, হাড়িতে ততই জমবে খেজুরের রস। শুরু হবে গুড় ও পিঠা তৈরির উৎসব।

গ্রামবাংলার সাধারণ মানুষেরা বলছেন, অপ্রাপ্তি আর দুঃখবেদনা যতই থাকুক, হেমন্ত এলে প্রকৃতির মতো তাদের জীবনেও যেন এক শীতলতা, যেন এক অন্যরকম অনুভূতি তৈরি হয়।