শিবগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনায় প্রতিপক্ষের হামলায় দোকানঘর ভাংচুরের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক

নিউজরাজশাহী.কম

প্রকাশিত : ০৮:৪৩ পিএম, ২ এপ্রিল ২০২০ বৃহস্পতিবার | আপডেট: ০৮:৪৩ পিএম, ২ এপ্রিল ২০২০ বৃহস্পতিবার

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার পাঁকা ইউনিয়নে পূর্ব শত্রুতার জেরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দোকান-ঘর ভাঙচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বুধবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে পাঁকা ইউনিয়নের দক্ষিণ পাঁকা বাজারে অবস্থিত পাঁকা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পাকা ইউনিয়ন পরিষদের আসন্ন নির্বাচনে নৌকা মনোনীত প্রার্থী ইসমাইল হোসেনের ছেলে এস.এম আলা আমিন জুয়েলের দোকান-ঘর ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে।

আর এ ঘটনার জন্য জুয়েল তার বাবার প্রতিপক্ষ ধানের শীষ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মালেকের সমর্থকদের দায়ী করেছেন।

এঘটনায় শিবগঞ্জ থানায় পাঁকা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপ-নির্বাচনের চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মালেক ও আব্দুল জলিলসহ ৯জনকে আসামী করে এসএম আল আমিন জুয়েল বাদী হয়ে এজাহার দায়ের করেছেন।

এজাহার সূত্রে জানা গেছে, দক্ষিণ পাঁকা বাজারের জলিল এসে তরিকুল ইসলামকে বলে ভারত থেকে গরু আনা লাগবে, আমাকে ১০জন লোক দে। কিন্তু তরিকুল ইসলাম লোক দিতে অস্বীকার করে বলে দেশের অবস্থা ভালো না এবং বর্তমানের সারাদেশে করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাব চলছে তাই লোক দেয়া যাবে না। এর এক পর্যায়ে অভিযুক্তরা বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে আমাদের না পেয়ে আমাদের দোকান ঘর ও দোকানে থাকা বিভিন্ন আসবাবপত্র ভাঙচুর করে।

এব্যাপারে পাঁকা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপ-নির্বাচনের চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মালেকের ব্যবহৃত ০১৭১৬-৪৭৯৫১৯ নম্বরে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়।

অন্যদিকে শিবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ শামসুল আলম শাহ জানান, এঘটনার একটি এজাহার পেয়েছি। ঘটনাটি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

স/র